ফিল্ড অ্যাজেন্ট রিভিউ: মিস্টেরি শপিং আয় করা করার অ্যাপ্লিকেশন

অনলাইন থেকে টাকা আয় করার জন্য সেরা একটি মাধ্যম হচ্ছে মিস্টেরি শপিং। মিস্টেরি শপিং হচ্ছে এক ধরণের মার্কেট রিসার্চ টুল যেখানে মিস্টেরি শপার মূলত বিভিন্ন কোম্পানি ও দোকানের পণ্য, সেবা ইত্যাদি ব্যবহার করে এএসবসম্পর্কে গোপনে মতামত প্রদান করে। মিস্টেরি শপিং করে আয় করার জন্য অনেক ওয়েবসাইট ও অ্যাপ ইন্টারনেটে রয়েছে। এতগুলো অ্যাপের মধ্যে সঠিক ও উপযুক্ত অ্যাপটি খুঁজে পাওয়া খুবই কষ্টকর।

Source: mytotalretail.com

ফিল্ড অ্যাজেন্ট হচ্ছে এমন একটি মিস্টেরি শপিং অ্যাপ যেখানে আপনাকে মিস্টেরি শপিংয়ের সাথে যুক্ত বিভিন্ন ধরনের টাস্ক কমপ্লিট করে আয় করার সুযোগ করে দেয়া হয়। আপনার এলাকার আশেপাশের বিভিন্ন অনলাইন দোকান, গ্রোসারি শপ, সুপারসেন্টার ইত্যাদি থেকে মিস্টেরি শপিং করার মাধ্যমে ও ছোটখাটো মার্কেট রিসার্চের টাস্ক কমপ্লিট করার মাধ্যমে ফিল্ড অ্যাজেন্ট থেকে আয় করতে পারবেন। চলুন তাহলে জানা যাক, ফিল্ড অ্যাজেন্টের খুঁটিনাটি সম্পর্কে।

Source: westwardhousing.org.uk

ফিল্ড অ্যাজেন্ট কী?

ফিল্ড অ্যাজেন্ট হচ্ছে এমন একটি স্মার্টফোন অ্যাপ যেখানে আপনি ছোটখাটো টাস্ক কমপ্লিট করে আয় করতে পারবেন। এসব কাজের মধ্যে মিস্টেরি শপিং, বিভিন্ন পণ্যের দাম চেক করা, পণ্যের অডিটিং করা, পণ্য বা সার্ভিসের ছবি তোলা, বিভিন্ন দোকানের পণ্যের লিস্ট সংগ্রহ করা, বিভিন্ন পণ্যের ও দোকানের সার্ভে করা ইত্যাদি। এসব কাজের জন্য ফিল্ড অ্যাজেন্ট আপনাকে ৩ ডলার থেকে ১২ ডলার পর্যন্ত দিয়ে থাকে। এই অ্যাপটি আইফোন ও অ্যান্ড্রয়েড উভয় ইউজারের জন্যই উপযুক্ত। বর্তমানে অ্যাপটি অস্ট্রেলিয়া, কানাডা, ডেনমার্ক, মেক্সিকো, নরওয়ে, রোমানিয়া, সুইডেন, ইউনাইটেড কিংডম এবং ইউনাইটেড স্টেটসের অধিবাসীদের জন্য সহজলভ্য।

Source: fieldagent.net

কীভাবে ফিল্ড অ্যাজেন্টের মাধ্যমে আয় করা যায়?

ফিল্ড অ্যাজেন্ট অ্যাপের সাইন আপ অপশন থেকে অ্যাকাউন্ট খুলে লিস্ট অথবা ম্যাপের মাধ্যমে সহজলভ্য কাজগুলো খুঁজে বের করতে পারবেন। প্রত্যেকটি টাস্কের নিচে সেই টাস্ক সম্পর্কিত বিভিন্ন তথ্য, টাস্কের লোকেশন ও টাস্ক কমপ্লিট করার পর কত ডলার আপনাকে দেয়া হবে সেটার বর্ণনা থাকে। টাস্কের উপর ক্লিক করলে আপনি টাস্ক কমপ্লিট করার জন্য যেসব প্রয়োজনীয় তথ্য লাগবে সেগুলো সম্পর্কে জানতে পারবেন।

Source: onlinescamguide.com

ফিল্ড অ্যাজেন্টে বিভিন্ন ধরনের টাস্ক রয়েছে। অডিটিং হচ্ছে এমন এক ধরনের টাস্ক যেখানে আপনাকে একটি দোকানে কিংবা সুপার সেন্টারে গিয়ে নির্দিষ্ট পণ্য বা সার্ভিসের অবস্থা সম্পর্কে জেনে আসতে হবে। মিস্টেরি শপিং হচ্ছে আরেক ধরণের টাস্ক যেখানে আপনাকে কাস্টোমারের অভিনয় করে বিভিন্ন পণ্য ও সেবা সম্পর্কে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য জোগাড় করতে হবে। স্ক্যাভ্যাঞ্জার হান্ট টাস্ক কমপ্লিট করার জন্য আপনাকে নির্দিষ্ট পণ্যের ছবি তুলতে হবে। মাঝে মাঝে টাস্কের লিস্টে সার্ভে অপশন থাকে। এক্ষেত্রে আপনাকে বিভিন্ন ধরনের প্রশ্নের উত্তর দেয়া লাগবে।

Source: mypocketjingles.com

যখন আপনি একটি সহজলভ্য টাস্ক খুঁজে পাবেন তখন সেই টাস্কে ক্লিক করে কাজটি এক্সেপ্ট করুন। সবসময় চেষ্টা করবেন নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যেই কাজটি কমপ্লিট করতে। কারণ, নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে কমপ্লিট না করতে পারলে আপনার অ্যাজেন্ট স্কোর ধীরে ধীরে কমতে থাকবে। আবার মাঝে মাঝে একটি টাস্ক কমপ্লিট করার জন্য অতিরিক্ত সময় ব্যয় করলে সেই টাস্ক অন্য কারো জন্য সহজলভ্য হয়ে যায়। কাজ এক্সেপ্ট করার পর সেটা কমপ্লিট করে সেটার সাথে যুক্ত সব ধরনের তথ্য অ্যাপে আপলোড করুন। কাজটি সঠিকভাবে করে থাকলে ২৪ ঘন্টার মধ্যেই আপনার অ্যাকাউন্টে ব্যালেন্স জমা হয়ে যাবে।

Source: wahadventures.com

ফিল্ড অ্যাজেন্ট কীভাবে পেমেন্ট দিয়ে থাকে?

ফিল্ড অ্যাজেন্টের মাধ্যমে একটি কাজ কমপ্লিট করার পর সেটা যদি এপ্রুভ হয়ে থাকে তাহলে ২৪ ঘন্টার মধ্যেই আপনার অ্যাকাউন্টে ব্যালেন্স জমা হয়ে যাবে। সেক্ষেত্রে আপনি চাইলে সাথে সাথেই তা পে আউট করতে পারবেন। ফিল্ড অ্যাজেন্টে কোনো ধরনের মিনিমাম পে আউট অ্যামাউন্ট নেই। ফিল্ড অ্যাজেন্ট বর্তমানে শুধুমাত্র পেপালের মাধ্যমেই পেমেন্ট দিয়ে থাকে। পেমেন্ট নেয়ার জন্য আপনাকে প্রথমে তাদের ওয়েবসাইটে যেতে হবে। সেখানে আপনার পেপালের ইমেইল অ্যাড্রেস দিয়ে ফোন নাম্বার ভেরিফিকেশন করে পেমেন্টের জন্য আবেদন করতে হবে। আবেদন করার ১ ঘন্টা থেকে শুরু করে ২৪ ঘন্টার মধ্যেই আপনার অ্যাকাউন্টে ব্যালেন্স জমা হয়ে যাবে।

Source: scamskitchen.com

ফিল্ড অ্যাজেন্ট অ্যাপের উপকারিতা ও অপকারিতা

ফিল্ড অ্যাজেন্ট অ্যাপের উপকারিতা:

  • খুব সহজেই ব্যবহার করা যায়।
  • কম সময়ে বেশ ভালো পরিমাণ অর্থ আয় করা যায়।
  • আয় করার জন্য বেশ কিছু মাধ্যম রয়েছে এখানে।
  • পে আউটের গতি অনেক বেশি।
  • পেপালের মাধ্যমে পেমেন্ট দেয়ার কারণে খুব সহজেই পেমেন্ট পাওয়া যায়।
  • কোনো মিনিমাম পে আউট নেই।

ফিল্ড অ্যাজেন্ট অ্যাপের অপকারিতা:

  • অনেকগুলো টাস্ক কমপ্লিট করার জন্য ফিজিক্যালি বিভিন্ন স্থানে যেতে হয়।
  • লোকেশনের ভিত্তিতে কাজ করতে হয়, যার ফলে কাজের সংখ্যা অল্প হয়ে থাকে।
Source: mygeotracking.com

অনেকেই ফিল্ড অ্যাজেন্ট অ্যাপের মাধ্যমে হাজার হাজার টাস্ক কমপ্লিট করেছে এবং করছে। বর্তমানে বিভিন্ন কাজের পাশাপাশি শপিং করা থেকে শুরু করে ছবি তুলেও আয় করা সম্ভব। এক্ষেত্রে এসব কাজের জন্য অসাধারন একটি অ্যাপ হচ্ছে ফিল্ড অ্যাজেন্ট। বেশিরভাগ কাজ কমপ্লিট করার জন্য ৫ ডলারের উপরে পেমেন্ট দেয়া হয়। মাত্র ২ মিনিটের ছবি তোলার কাজেও আপনাকে ২ ডলারের উপরে পেমেন্ট দেয়া হবে। মাঝে মাঝে টাস্ক কমপ্লিট করার জন্য বেশ কিছু অফারও দেয়া হয়। যার মধ্যে ফ্রি ডিনার, ফ্রি পিজ্জা ইত্যাদি রয়েছে।

Source: dribbble.com

মাঝে মাঝে টাস্ক কমপ্লিট করে জমা দেয়ার পর সেটা অ্যাপ্রুভ হতে ২ দিনের মত সময় লেগে যায়। তবে সাধারণত বেশিরভাগ টাস্কই ১ দিনের মধ্যেই অ্যাপ্রুভ হয়ে যায়। ক্যাশ আউট মেথড পেপাল হওয়ার কারনে প্রায় প্রত্যেক দেশ থেকেই এর মাধ্যমে পেমেন্ট নেয়া সম্ভব। আমি অনেক ফিল্ড অ্যাজেন্ট ওয়ার্কারদের দেখেছি যারা তাদের অন্যান্য কাজের পাশাপাশি শুধুমাত্র ফিল্ড অ্যাজেন্টের কাজ করে প্রত্যেক মাসে ১০০ ডলারের উপরে আয় করছে। এই অ্যাপের সবদিক বিবেচনা করে দেখা যায় যে, ঘরে বসে অন্যা কাজের পাশাপাশি আয় করার জন্য অসাধারণ একটি অ্যাপ হচ্ছে ফিল্ড অ্যাজেন্ট।

Featured Image: retail-maxim.co.uk

The post ফিল্ড অ্যাজেন্ট রিভিউ: মিস্টেরি শপিং আয় করা করার অ্যাপ্লিকেশন appeared first on Youth Carnival.

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *