ব্যক্তিগত ফাইন্যান্স সফটওয়্যারের গুরুত্ব

আপনি কি জানেন, মানুষ দৈনন্দিন জীবনে সবচেয়ে বেশি চাপে থাকে কী নিয়ে? মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মানসিক স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা বলছে, অর্থ নিয়ে মানুষ সবচেয়ে বেশি দুশ্চিন্তায় থাকে। প্রতি চারজন প্রাপ্তবয়স্ক পুরুষের তিনজনই অর্থ নিয়ে চাপে থাকেন। হয় তারা অধিক অর্থ রোজগারের উপায় নিয়ে চিন্তা করেন, না হয় অর্থ না থাকার কারণে দুশ্চিন্তা করেন।

Source: Financial Wellness

আপনার টাকা আপনার নিয়ন্ত্রণে আছে, নাকি আপনি টাকার নিয়ন্ত্রণে আছেন? যাই হোক না কেন, টাকার কারণে আপনি সব সময় অতিরিক্ত মানসিক চাপে থাকেন। কিন্তু আপনি চাইলে একটা সাধারন ফাইন্যান্স সফটওয়্যার ব্যবহার করে টাকা নিয়ে এই বাড়তি মানসিক চাপ অনেকাংশে কমিয়ে ফেলতে পারেন। কেননা এই সফটওয়্যার আপনার সকল অর্থ ব্যবস্থাপনার দায়িত্ব নিয়ে আপনাকে সহযোগিতা করে।

ব্যক্তিগত অর্থ ব্যবস্থাপনার জন্য যদি আপনি কোনো সফটওয়্যার বা পদ্ধতি ব্যবহার না করেন, তাহলে ক্রমাগত অর্থের পরিমাণ বৃদ্ধি অথবা কমার সাথে সাথে আপনার মানসিক চাপ বৃদ্ধি পাবে। ফলে আপনি টাকার দুশ্চিন্তায় ক্রমশ অসুস্থ হয়ে পড়বেন।

দৈনন্দিন জীবনের নানা চাপ এবং দুশ্চিন্তা আমাদের প্রতি মুহূর্তেই আক্রান্ত করে। এর সাথে যদি অর্থনৈতিক দুশ্চিন্তা যুক্ত হয় তাহলে জীবন যাপন দুর্বিষহ হয়ে যেতে বাধ্য।

Source: Lifehack

সুতরাং এই দুশ্চিন্তা আর নয়। ব্যক্তিগত অর্থের হিসাব নিকাশ এবং পরিচালনা আর্থিক সফটওয়্যারের উপর ছেড়ে দিন।

এই নিবন্ধে ব্যক্তিগণ ফাইনান্স সফটওয়্যার সম্বন্ধে বিস্তারিত আলোচনা করা হলো। এখানে আলোচিত নির্দেশনা থেকে আপনি বুঝতে পারবেন, কীভাবে ব্যক্তিগত ফাইনান্স সফটওয়্যার দীর্ঘমেয়াদি অর্থনৈতিক লক্ষ্য পূরণে এবং দৈনন্দিন জীবনের অর্থ পরিচালনায় আপনাকে সহযোগিতা করতে পারে।

এই সফটওয়্যার যেমন আপনার সন্তানের স্কুলের বেতন পরিশোধের খবর রাখবে, তেমনি মাস শেষে মুদি দোকনে কেনাকাটা করার অর্থ আপনার কাছে থাকবে কিনা তারও খবর রাখবে। সকল তথ্য এমনভাবে আপনার সামনে উপস্থাপন করবে যে এক দৃষ্টিতে আপনি গোটা মাসের অর্থনৈতিক অবস্থা বুঝতে পারবেন।

ব্যক্তিগত ফাইনাল সফটওয়্যার কেন প্রয়োজন?

আপনার মাথায় প্রশ্ন আসতে পারে, ব্যক্তিগত ফাইনাল সফটওয়্যার কেন প্রয়োজন? ব্যক্তিগত ফাইনান্স সফটওয়্যার আপনার গাড়ির সামনে থাকা ড্যাশবোর্ড বা মিটার বোর্ডের সাথে তুলনা করুন। গাড়ি চালানোর সময় এই বোর্ডে তাকালে আপনি দেখতে পান, গাড়ি কেমন গতিতে চলছে, কতটুকু তেল আছে, গাড়ির মবিলের অবস্থা কী? বাকি তেলে আপনি কতটুকু দূরত্বে পৌঁছতে পারবেন এবং বর্তমান গতিতে গেলে কাঙ্খিত গন্তব্যে পৌঁছাতে আপনার কত সময় লাগবে।

Source: Fusionrms

ব্যক্তিগত ফাইন্যান্স সফটওয়্যার ঠিক গাড়ির এই মিটার বোর্ডের মতো। আপনার বর্তমান অর্থনৈতিক অবস্থা কী, চলতি মাসে কী কী আর্থিক পরিকল্পনা আছে? কোনো কোনো খাতের খরচ আপনার সামনে অপেক্ষা করছে এবং সামনের দিনগুলো পরিচালনার জন্য আর কত টাকা অবশিষ্ট আছে, ইত্যাদি সব তথ্য ব্যক্তিগত ফাইন্যান্স সফটওয়্যার থেকে আপনি খুব সহজেই জানতে পারবেন।

ব্যক্তিগত ফাইন্যান্স সফটওয়্যারের প্রকারভেদ

ব্যক্তিগত ফাইন্যান্স সফটওয়্যার মূলত দুই প্রকারের হয়। একটি কর প্রস্তুতকারী, অন্যটি অর্থ পরিচালনাকারী। কর প্রস্তুতকারী সফটওয়্যার আপনাকে সকল প্রকার কর প্রস্তুত এবং পরিচালনার কাজে সহায়তা করবে। এমনকি এ সম্পর্কিত অনলাইন টুলস ব্যবহার করার মাধ্যমে কর পরিশোধ এবং হালনাগাদকৃত তথ্য জানতে সহায়তা করবে।

Source: Finance For Geek

আর অর্থ পরিচালনার সফটওয়্যার আপনার দৈনন্দিন জীবনের আর্থিক পরিকল্পনা এবং পরিচালনার কাজে সহায়তা করবে। নগদ অর্থ প্রবাহ, ঋণ পরিশোধ, সঞ্চয় পরিকল্পনা, সঞ্চয় পূর্বাভাস, বিনিয়োগ সন্ধান, বিল পরিশোধ ইত্যাদি সুনির্দিষ্ট কাজে ব্যক্তিগত অর্থ পরিচালনা সফটওয়্যার গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

নিচে ব্যক্তিগত ফাইনান্স সফটওয়্যার ব্যবহারের কার্যকর কয়েকটি উপায় আলোচনা করা হলো।

একাধিক অ্যাকাউন্ট ব্যবস্থাপনা

একজন মানুষের একাধিক অর্থের উৎস থাকতে পারে। আবার একটি চেকিং একাউন্ট ব্যবহার করার সাথে সাথে একই ব্যক্তি ভিন্ন সঞ্চয় অ্যাকাউন্ট, অর্থ বাজার একাউন্ট, এবং অবসর একাউন্ট পরিচালনা করতে পারে। একই সাথে মানুষ ক্রেডিট কার্ডও ব্যবহার করে।

Source: Money Control

প্রত্যেক একাউন্টের হিসাব আলাদা করে টাইপ করা এবং সংরক্ষণ করা আপনার জন্য সময় সাপেক্ষ ব্যাপার। ব্যক্তিগত ফাইন্যান্স সফটওয়্যার আপনাকে একাধিক একাউন্ট একটি উৎস থেকে পরিচালনা করার সুযোগ দেয়, যার ফলে সকল একাউন্টের হিসাব আপনি এক জায়গায় পেয়ে যাবেন।

স্বয়ংক্রিয় বিল পরিশোধ

দৈনন্দিন জীবনে আমাদের একাধিক প্রতিষ্ঠান বা সেবার বিল পরিশোধ করতে হয়। উন্নত বিশ্বে সকল প্রকার বিল এখন অনলাইনে পরিশোধ করা যায়। এমনকি সাম্প্রতিককালে বাংলাদেশেও বিদ্যুৎ, পানি, গ্যাসের বিল অনলাইনে পরিশোধ করার সুবিধা সৃষ্টি হয়েছে।

Source: Snydle

এই কাজের জন্য প্রতিটি একাউন্টে আলাদাভাবে প্রবেশ করে আলাদা আলাদা বিল পরিশোধ করার প্রয়োজন নেই। ব্যক্তিগত ফাইনাল সফটওয়্যার ব্যবহার করে একাধিক একাউন্ট বা প্রতিষ্ঠানের বিল স্বয়ংক্রিয়ভাবে নির্দিষ্ট দিনে পরিশোধ করা যায়। কাজেই ব্যক্তিগত ফাইন্যান্স সফটওয়্যার ব্যবহার করলে অর্থের অযাচিত খরচ থেকে মুক্তি পাবেন এবং সময়মত সকল বিল পরিশোধ করতে সক্ষম হবেন। তবে বাংলাদেশি সকল প্রতিষ্ঠান বা সেবার বিল এখনো অনলাইনে পরিশোধ করার পদ্ধতি চালু হয়নি।

ব্যক্তিগত বাজেট পরিচালনা

ব্যক্তিগত ফাইন্যান্স সফটওয়্যারের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ সুবিধা হলো, এটি আপনার ভার্চুয়াল মানি ব্যাগের ভেতর বাহিরের সব খবর রাখে। যার ফলে মাসের এবং বছরের ব্যক্তিগত বাজেট পরিকল্পনা সহজ হয়ে যায়।

Source: Money Inc

প্রতিদিন আপনি কী খাচ্ছেন, বন্ধুদের সাথে আড্ডায় কত টাকা ব্যয় করছেন, সব খবর আপনার ব্যক্তিগত ফাইনাল সফটওয়্যার রাখে। যখন চোখের সামনে নিজের জমা খরচের সব হিসাব দেখতে পাবেন তখন সহসাই অর্থ খরচের ব্যাপারে সচেতন হয়ে উঠবেন। ফলে দৈনন্দিন অপ্রয়োজনীয় খরচ কমানোর এবং কাঙ্খিত অর্থ সঞ্চয় করা সহজ হবে।

ব্যক্তিগত ফাইন্যান্স সফটওয়্যার ব্যবহার করলে আপনার দৈনন্দিন অর্থ পরিচালনা অনেক সহজ হয়ে যাবে। ফলে সহজেই মাসিক বা বাৎসরিক নির্দিষ্ট লক্ষ্য পূরণ করতে পারবেন এবং অর্থনৈতিকভাবে আপনি আরও স্বাবলম্বী হয়ে উঠবেন।

Feature Image: Lifehack

The post ব্যক্তিগত ফাইন্যান্স সফটওয়্যারের গুরুত্ব appeared first on Youth Carnival.

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *