Source: Pinterest

যেসব গুণ সাংবাদিকতা ক্যারিয়ারে সফলতা বয়ে আনবে

সংবাদমাধ্যমে নিজের ক্যারিয়ার আপনি তখনই গড়ে তুলতে পারবেন, যখন কর্মক্ষেত্রে আপনি চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করতে পছন্দ করবেন। এছাড়া প্রতিনিয়ত কাজের মধ্যে নিজের মেধা খাটাতে হবে। বিশ্বের সকল সাংবাদিক তাদের পাঠক, শ্রোতা এবং দর্শকদের বিভিন্ন বিষয়ের উপর দ্রুত নিত্যনতুন সংবাদ পৌঁছে দেওয়ার কাজটি করে থাকেন। এই কর্মক্ষেত্রে যেমন রয়েছে পছন্দ অনুযায়ী বিভিন্ন সেক্টরে কাজ করার সুযোগ, তেমনি এখানে নিজের সৃজনশীলতাকে কাজে লাগিয়ে সাফল্য অর্জন করা সম্ভব। তবে এর পাশাপাশি সাংবাদিকতা পেশায় নিজের ক্যারিয়ার গড়ে তুলতে প্রয়োজন রয়েছে একাধিক বিষয়ে দক্ষতার। চলুন জেনে নেওয়া যাক, যেসব দক্ষতা সাংবাদিকতায় আপনার ক্যারিয়ার উজ্জ্বল করতে সহায়তা করবে।

১. ভালো শ্রোতা হওয়া

 ফিল্ড ওয়ার্কে আপনাকে অবশ্যই ভালো শ্রোতা হতে হবে। একজন ভালো শ্রোতা যেমন অন্যদের সাথে খুব সহজেই যোগাযোগ করতে পারেন, তেমনি প্রয়োজনীয় তথ্য সহজে জোগাড়ও করতে পারেন।

Source: Pinterest

২. লিখতে ভালোবাসা

লেখালেখি হচ্ছে সকল ধরনের সাংবাদিকতা পেশার মূলমন্ত্র। একজন সাংবাদিককে রিপোর্ট থেকে শুরু করে পত্রিকার আর্টিকেল, ফিচার লিখতে হয়।

আপনি হয়তো ভালো মানের আর্টিকেল লিখতে পারেন, তবে লিখতে তেমন পছন্দ করেননা। এমনটি হয়ে থাকলে আপনাকে ভবিষ্যতে বেশ পস্তাবে হবে। আর নিজের ক্যারিয়ার সফলতা অর্জনেও প্রতিবন্ধতা সৃষ্টি হবে।

৩. আপনার রন্ধ্রে রন্ধ্রে সৃজনশীলতা থাকতে হবে

বলাবাহুল্য, ক্রিয়েটিভিটি ছাড়া সাংবাদিক হওয়া অসম্ভব বটে। কারণ একজন রিপোর্টারকে আর্টিকেল লেখার মধ্যে দিয়েই বেশিরভাগ সময়ে কাটাতে হয়। গবেষণানির্ভর তথ্যের পাশাপাশি বাস্তবমুখী কল্পনা মিশিয়ে এসব রিপোর্ট লিখতে হয়। আর এই বাস্তবমুখী লেখার জন্য রাইটারকে অবশ্যই ক্রিয়েটিভ হতে হবে। সংবাদ অন্যের কাছে পৌঁছে দেয়ার জন্য নিত্যনতুন পদ্ধতি বের করতে হবে। আর নিজের ক্রিয়েটিভিটি কাজে লাগিয়ে আকর্ষণীয়ভাবে তথ্য উপস্থাপন করতে হবে।

Source: Pinterest

৪. চারপাশে মানুষদের খুশি রাখা  

এখানে খুশী রাখা বলতে তৈলমর্দন করাকে বোঝায় না। যারা হাসিখুশি থাকেন, অন্যদের সাথে বন্ধুত্বপূর্ণ আচরণ করেন, তাদের প্রতি চারপাশের মানুষ সন্তুষ্ট থাকেন। এক্ষেত্রে হয়তো দেখা যাবে, অন্যদের যে সংবাদগুলো দেখার দায়িত্ব ছিলো, সেগুলো আপনার উপর চাপানো হয়েছে। হয়তো দেখা যাবে আপনার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা আপনার উপর আস্থা বেশি রাখে বিধায় আপনাকে কাজের প্রেশার বেশি নিতে হচ্ছে। এই বিষয়গুলো মেনে নিতে হবে।

৫. কোন চুক্তি অথবা ঘটনার ভেতর ও বাইরের  খবরাখবর জানার আগ্রহ

আপনি যদি কোন ঘটনার সত্যিকারের বিষয়টি সকলের সামনে প্রকাশ করতে আগ্রহী হয়ে থাকেন, তাহলে সত্যিকারের সাংবাদিকতা আপনাকে দিয়ে সম্ভব। আর সকল ধরনের তথ্য সংগ্রহ করতে আপনাকে প্রচুর পরিমাণে খাটতে হবে। আর সেই সাথে আপনাকে অনেক সময় বড় ধরনের ঝুঁকিও  নিতে হতে পারে। তবে সেসবে ভয় না পেয়ে আপনি যদি সত্যিকারের সত্যগুলো সকলের সামনে তুলে ধরতে ইচ্ছুক হয়ে থাকেন, তাহলেই সাংবাদিকতায় নিজের ক্যারিয়ার উজ্জ্বল করতে পারবেন।

৬. কাজের প্রেশার নেওয়ার ক্ষমতা

হয়তো আপনি এখনো নিশ্চিত নন যে, অতিরিক্ত পরিমাণ প্রেশারের মধ্যে আপনার কাজ করতে পারবেন কিনা। তবে সাংবাদিকতা পেশাতে আপনাকে অধিকাংশ সময় অতিরিক্ত প্রেশারের মধ্যে কাজ করতে হবে।

Source: Pinterest

অনেক সময় দেখা যাবে, একাধিক কর্মীর কাজ আপনাকে একাই সামলাতে হবে। সেসব পরিস্থিতি একজন এক্সপার্টের মতো সামলে নেওয়ার অভিজ্ঞতা ও দক্ষতা আপনার থাকতে হবে।

৭. যেকোনো পরিস্থিতিতে ও যেকোনো সময়ে কাজ করতে প্রস্তুত থাকা

একজন সাংবাদিকের কাছে বিভিন্ন স্থান হতে বিভিন্ন সময়ে সংবাদ এসে পৌছায়। আপনি যতই ভাবুন না কেনো, নির্দিষ্ট সময়েই শুধুমাত্র কাজ করবেন,  এই পেশায় সেটি সম্ভব হবে না। হতে পারে, গভীর রাতে আপনার কাছে সংবাদ এসে পৌঁছাবে এবং তৎক্ষণাৎ সে বিষয়ের উপর আপনাকে রিপোর্ট লিখতে হবে। তাই ব্যক্তিগত জীবনকে একপাশে রেখে যেকোনো মূহুর্তে সাংবাদিকতা করার জন্য আপনাকে প্রস্তুত থাকতে হবে।

৮. আবেগসংক্রান্ত বিষয়গুলো নিয়ন্ত্রণে রাখা

সাংবাদিকদের ব্যক্তিগত জীবনে বিভিন্ন সমস্যা থাকাই খুব স্বাভাবিক ঘটনা। আর মানুষের স্বভাব হচ্ছে, কোনো সমস্যায় জর্জরিত হলে তার রাগ অন্যের উপর ঝাড়া। একজন সাংবাদিককে অবশ্যই এই অভ্যাস পরিত্যাগ করতে হবে। নিজের ব্যক্তিগত ও আবেগ সংক্রান্ত সমস্যাগুলো চেপে রেখে নিজের দায়িত্ব সঠিকভাবে পালন করার মানসিকতা থাকতে হবে।

৯. প্রচুর আত্মবিশ্বাস থাকা

আত্মবিশ্বাস যেকোনো কাজের ক্ষেত্রে জরুরি। নিজের কাজ এবং দক্ষতার উপর যথেষ্ট আস্থা তৈরি করতে হবে। প্রয়োজনে নিজের দক্ষতায় আরো শান দিয়ে নিজেকে যোগ্য করে তুলতে হবে।

Source: Pinterest

আপনি যখন কোন সংবাদ প্রচার করবেন, তখন সেই সংবাদ অবশ্যই আত্মবিশ্বাসের সাথে প্রচার করা জরুরি। কারণ নিজের কাজের উপর যদি আপনার আস্থা ও আত্মবিশ্বাস না থাকে, তখন আপনার শ্রোতা ও পাঠকরাও আপনার উপর ভরসা পাবেননা।

১০. সবার মধ্যমণি হতে পছন্দ করা

অনেক সময়েই দেখা যায়, সবার অতিরিক্ত আকর্ষণের কারণ হতে আমরা অস্বস্তিবোধ করি। নিজেকে আড়ালে রেখে অনেকে কাজ করতে চান। কিন্তু একজন সাংবাদিকের মধ্যে এই স্বভাব কোনোভাবেই থাকা যাবেনা। আপনাকে সবসময়ই সকল কাজের মধ্যমণি হয়ে থাকার চেষ্টা করতে হবে।

প্রয়োজনে আপনাকে একাধিক কাজের দায়িত্বও নিতে হবে। বিভিন্ন পরিস্থিতি মোকাবেলার জন্য সবার আগে এগিয়ে যেতে হবে। এই কাজগুলো যেমন আপনার পরিচিতি সকলের কাছে পৌঁছে দেবে, তেমনি আপনার কাজের উপর মানুষের আস্থাও সৃষ্টি হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *